1. crimeletter24@gmail.com : crimelet_crimelet :
শনিবার, ০৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৬:৩১ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
গণমাধ্যম ও মানবাধিকার সংস্থা ন্যাশনাল প্রেস সোসাইটি (এনপিএস) খুলনা বিভাগ লাকসাম আজগরা ইউপি আ’স্বেচ্ছাসেবক লীগের কর্মী সমাবেশ ও পরিচিত সভা অনুষ্ঠিত গাজীপুরে দুদকের গণশুনানি অনুষ্ঠিত বিরামপুরে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ বগুড়ায় দুদিনব্যাপী জামাই মেলা: বড় মাছ কেনার লড়াইয়ে জামাই-শ্বশুর অভিযাত্রিক সাহিত্য ও সংস্কৃতি সংসদ-এর ২২৭২ তম সাপ্তাহিক সাহিত্য আসর অনুষ্ঠিত প্রশাসনের বন্ধ করা অবৈধ ইটভাটা ফের চালু তানোরে কৃষক দলের আহবায়ক কমিটি গঠন তানোরের দুই মেয়র গ্রেফতার এড়াতে আত্মগোপণে নাগেশ্বরীতে ১৮ টি সংখ্যালঘু পরিবার সরকারের সকল সুবিধা থেকে বঞ্চিত। বাস্তবায়ন হয়নি, মন্দিরের সংস্কার কাজ

আলেমরা রাজনৈতিক ব্যক্তি ও প্রশাসনের দুয়ারে দুয়ারে ফুল নিয়ে হাজির হবে কেন

  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ৩০ নভেম্বর, ২০২২
  • ৪৬ ০৫ বার পঠিত

বিশেষ প্রতিনিধি -ঃ- একজন আলেম দেশ ও জাতির শ্রেষ্ঠ সম্পদ। মূল্যবান সম্পদ হারিয়ে গেলে মানুষ যেমন দিশেহারা হয়ে যায়, ঠিক তেমনি কোন আলেম চলে গেলে পুরো দেশ ও সমাজ অচল হয়ে পড়ে । যেহেতু আলেম-ওলামা না থাকলে দ্বীন ও দ্বীনি জ্ঞান চর্চা হবে না, পৃথিবীর সব মানুষ মনুষ্যত্ব ভুলে গিয়ে চতুষ্পদ জন্তুতে পরিণত হয়ে যাবে, তাই তাদের অনুপস্থিতিতে এই নশ্বর পৃথিবীও টিকে থাকবে না, ধ্বংস হয়ে যাবে। সেজন্যে একজন প্রকৃত আলেমকে দান করা হয়েছে সর্বোচ্চ মর্যাদা।
উবাদা ইবনে সামেত (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেছেন, ‘ওই ব্যক্তি আমার আদর্শের ওপর নাই, যে আমাদের বড়দের সম্মান করে না, ছোটদের স্নেহ করে না এবং আমাদের আলেমদের প্রাপ্য মর্যাদা প্রদান করে না।
ইসলামি বিধি-বিধানের প্রকৃত মূল্যবোধ বজায় ও জাগরিত রাখার জন্য আলেম-ওলামাদের প্রতি সম্মান প্রদর্শন ও আস্থাশীল হতে হবে। তাদের প্রতি মান্যতা থাকতে হবে । তুচ্ছতাচ্ছিল্য ও অবজ্ঞার দৃষ্টিতে দেখা যাবে না। বিরুদ্ধাচারণ করা যাবে না। কারণ, আলেমদের বিরোধিতা করা ইসলাম বিরোধী হওয়ার নামান্তর। তাছাড়া সমাজে আলেম ওলামাদের গুরুত্ব অপরীসীম। যেহেতু জন্ম গ্রহণের সময়, মৃতূতে, দ্বীনি শিক্ষা গ্রহণেসহ বিভিন্ন ধর্মীয় কাজে আলেমদের খুবই প্রয়োজন। সে কারণে মানুষ আলেম সমাজকে শ্রদ্ধা করে, ভক্তি করে, সমীহ করে। দোয়ার জন্য এবং বিভিন্ন ধরণের ধর্মীয় সিদ্ধান্তের জন্য মানুষ প্রতি নিয়ত আলেমদের নিকট ধরনা দেয়। কিন্তু ইদানিং কালে দেখা গেছে কিছু সংখ্যক আলেম তাদের অর্থ স্বার্থ হাসিল করতে দিন দিন আলেন সমাজের মর্যাদাকে ক্ষুন্ন করে চলেছে।
সাধারণত সমাজে দেখা যায় রাজনৈতিক ব্যক্তি থেকে শুরু করে বিভিন্ন পেশার মানুষ তাদের স্বার্থ হাসিলেন জন্য উচ্চ বিত্তদের তেল মারতে। এখন দেখা যায় কিছু আলেমও তেল মারার প্রতিযোগিতায় ! সোসাল মিডিযায় দেখা গেছে, নাঙ্গলকোটে ইমাম সমিতির ব্যানারে কতিপয় আলেম উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরে গিয়ে গিয়ে জনপ্রতিনিধি ও প্রশাসনের কর্মকর্তাদের ফুল দিয়েছেন। বিষয়টি সাধারণ মানুষ খুবই বেমানান মনে করছেন। অনেকে বলছেন, ইমাম পদটি খুবই গুরুত্বপুর্ণ। একজন ইমাম সমাজের দর্পন ও উচ্চ মর্যাদাশীল ব্যাক্তি। অতএব, তারা ফুল দিতে বিভিন্ন রাজনৈতিক ব্যক্তি অথবা প্রশাসনের কর্মকর্তাদের দুয়ারে দুয়ারে হাজির হতে হবে কেন ?

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ